সোমবার

২২ এপ্রিল ২০২৪


৯ বৈশাখ ১৪৩১,

১২ শাওয়াল ১৪৪৫

বৃহত্তর জ্বালানি তেল শোধনাগার তৈরি করবে এস. আলম গ্রুপ

নিজস্ব প্রতিবেদক || বিজনেস ইনসাইডার

প্রকাশিত: ১৯:২৯, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪  
বৃহত্তর জ্বালানি তেল শোধনাগার তৈরি করবে এস. আলম গ্রুপ

সংগৃহিত

নিজস্ব প্রতিবেদক: দেশের ব্যবসায়িক শিল্পগোষ্ঠী এস. আলম গ্রুপ রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন ইস্টার্ন রিফাইনারিকে(ইআরএল) সঙ্গে নিয়ে দীর্ঘ বহুল প্রতিক্ষীত রিফাইনারির  দ্বিতীয় ইউনিট তৈরির উদ্যোগ নিয়েছে। গত বছরের অক্টোবরে এই বিষয় নিয়ে এস. আলম গ্রুপ সরকারের কাছে একটি প্রস্তাবনা দেয়। এর পরিপ্রেক্ষিতে সরকার ৫ মিলিয়ন টন জ্বালানি তেল রিফাইনে সক্ষম এমন একটি রিফাইনারি নির্মাণের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে প্রতিষ্ঠানটিকে। প্রকল্পটি চট্টগ্রামে ইআরএল- এর মালিকানাধীন জমিতে ৮০-২০ ইক্যুইটির ভিত্তিতে নির্মাণ করা হবে।

এ বিষয়ে আনুষ্ঠানিকতা এগিয়ে নিতে গত ১৪ ফেব্রুয়ারি সাত সদস্যের একটি কমিটি গঠন করা হয়। এই কমিটিতে পদ্মা অয়েল-এর ব্যবস্থাপনা পরিচালকসহ বিপিসি’র তিনজন কর্মকর্তা এবং ইআরএল- এর তিনজন কর্মকর্তা রয়েছেন। কমিটির নেতৃত্ব দেবেন বিপিসি’র ডিরেক্টর ফর অপারেশনস মো. খালিদ আহম্মেদ। আলোচনা শেষ করতে কমিটির এক মাস সময় লাগবে বলে জানিয়েছেন বিপিসি’র কর্মকর্তারা।

ইস্টার্ন রিফাইনারির বার্ষিক রিফাইনিং সক্ষমতা ১.৫ মিলিয়ন টন। ২০১২ সালে ৩০ লাখ টন সক্ষমতার আরেকটি রিফাইনারি ইউনিট নির্মাণের জন্য ‘ইআরএল-২ স্থাপন’-এর প্রকল্প হাতে নেওয়া হয়। যদিও অর্থায়ন সংক্রান্ত জটিলতার কারণে এই প্রকল্পটি পরে আর বাস্তবায়নের মুখ দেখেনি। সরকারকে সাথে নিয়ে এখন এস. আলম গ্রুপ আরো বেশি সক্ষমতা সম্পন্ন অর্থ্যাৎ ৫০ লাখ টন সক্ষমতার রিফাইনারি স্থাপনের পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে।

এস. আলম গ্রুপের নির্বাহী ডিরেক্টর সুব্রত কুমার ভৌমিক বলেন, “এস. আলম গ্রুপের প্রাক্কলন অনুযায়ী ৫০ লাখ টনের এই তেল রিফাইনারি নির্মাণে ৪ বিলিয়ন ডলার বা ৪০ হাজার কোটি টাকার বেশি বিনিয়োগ প্রয়োজন হবে। ২০১২ সালের পূর্বের পরিকল্পনার তুলনায় প্রস্তাবিত নতুন উদ্যোগে  রিফাইনারির সক্ষমতা আগের চেয়ে ৬৬ শতাংশের বেশি হওয়ায় বাজেট বেড়েছে; এবং মুদ্রাস্ফীতি, ডলারের উচ্চমূল্য (আগের হিসাবে যা ছিল ডলার প্রতি ৮০ টাকা কিন্তু এখন ১১৮ টাকা) ও পরিবেশবান্ধব ও সর্বাধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহারের কারণে আমাদের বিনিয়োগ এর পরিমাণ বাড়াতে হচ্ছে।”
এস. আলম গ্রুপ পেট্রোলিয়াম এর বেড়ে চলা চাহিদা পূরণের মাধ্যমে দেশের অর্থনীতির চাকা গতিশীল রাখতে অঙ্গীকারবদ্ধ। ৭ মিলিয়ন টন চাহিদা থাকলেও, দেশের রিফাইন সক্ষমতা সীমাবদ্ধ থাকায় এস. আলম গ্রুপ ও সরকার বৃহত্তর রিফাইনারি প্ল্যান্ট নির্মাণের মাধ্যমে বর্ধিত চাহিদা পূরণে যৌথভাবে কাজ করার পদক্ষেপ নিয়েছে।

Nagad
Walton

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়