United Commercial Bank (UCB)

রোববার

০৩ জুলাই ২০২২


১৯ আষাঢ় ১৪২৯,

০২ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৩

‘স্বচ্ছ’ নির্বাচন প্রক্রিয়া সম্পর্কে ব্লিঙ্কেনকে জানালেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক || বিজনেস ইনসাইডার

প্রকাশিত: ১২:১৪, ৫ এপ্রিল ২০২২  
‘স্বচ্ছ’ নির্বাচন প্রক্রিয়া সম্পর্কে ব্লিঙ্কেনকে জানালেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

বাংলাদেশের-যুক্তরাষ্ট্র পররাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ে বৈঠক, সংগৃহীত

ঢাকা (০৫ এপ্রিল): বাংলাদেশের ‘স্বচ্ছ, স্বাধীন ও নিরপেক্ষ’ নির্বাচন কমিশন সম্পর্কে যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে অবহিত করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এক আবদুল মোমেন। এসময় তিনি বিএনপিকে নির্বাচনে অংশ নেওয়ার জন্য উৎসাহিত করতে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে পরামর্শ দিয়েছেন। খবর: ইউএনবি। 

সোমবার মার্কিন পররাষ্ট্র দফতরে আয়োজিত তাদের দ্বিপক্ষীয় বৈঠকে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ব্লিঙ্কেনকে বলেন, দেশের নিয়ম-কানুন মেনে চলার জন্য তাদের (বিএনপি) নির্বাচনী প্রক্রিয়ায় আনুন।

ওয়াশিংটনে বৈঠকের পর উপস্থিত সাংবাদিকদের মোমেন বলেন, তিনি মার্কিন পক্ষকে জানিয়ে দিয়েছেন যে বাংলাদেশে একটি ভালো নির্বাচন প্রক্রিয়া ও ব্যবস্থা রয়েছে। একটি দল (বিএনপি) ছাড়া সব দল এই স্বচ্ছ, অবাধ ও নিরপেক্ষ নির্বাচনে অংশ নেয়।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, বিএনপিকে জনগণের কাছে যেতে হবে এবং ভোট প্রক্রিয়ায় অংশ নিতে হবে। আমাদের একটি নিরপেক্ষ ব্যবস্থা আছে। আমাদের নির্বাচন কমিশন আছে। তারা (ইসি) স্বাধীন এবং নির্বাচনের সময় তারাই বস।

তিনি বলেন, তারা (বিএনপি) যদি সত্যিই গণতন্ত্রের প্রতি বদ্ধপরিকর হয়, তাহলে তাদের নির্বাচন প্রক্রিয়ায় অংশগ্রহণ করা উচিত। তারা নির্বাচন করতে চাইলে তাদের স্বাগত জানাই। এসময় তিনি আরও বলেন, বিএনপির মেয়র তার সিটিতে (সিলেট) খুব স্বাচ্ছন্দ্যে কাজ করছেন।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র প্রাচীনতম আধুনিক গণতন্ত্রগুলোর মধ্যে একটি হলেও মোমেন মার্কিন গণতন্ত্রের দুর্বলতার কথা উল্লেখ করে বলেন, বাংলাদেশ ৫০ বছরের দেশ। যার মধ্যে ১৮ বছর সামরিক-সমর্থিত সরকার ছিল। বাংলাদেশে বিপুল জনসংখ্যা নির্বাচনে তাদের ভোট দিয়েছে, অথচ যুক্তরাষ্ট্রে এই সংখ্যাটা খুবই কম।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের দ-প্রাপ্ত খুনি রাশেদ চৌধুরীকে আশ্রয় দেওয়ার প্রসঙ্গ উত্থাপন করেন এবং তাকে বাংলাদেশের কাছে হস্তান্তরের পুনরায় আহ্বান জানান। 

দ্বিপাক্ষিক আলোচনায় মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ব্লিঙ্কেন এবং বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোমেন ঢাকা-ওয়াশিংটন সম্পর্কের অভূতপূর্ব অর্থনৈতিক সম্ভাবনা নিয়ে আলোচনা করেছেন। এছাড়া তারা জলবায়ু সঙ্কট মোকাবিলায় চলমান সহযোগিতা, গণহত্যার শিকার রোহিঙ্গাদের সম্পর্কে এবং জাতিসংঘের শান্তিরক্ষা কার্যক্রমের মাধ্যমে আঞ্চলিক নিরাপত্তার কথা তুলে ধরেন।

এসময় ব্লিঙ্কেন নিরাপদ ও সমৃদ্ধ গণতান্ত্রিক সমাজের ভিত্তি হিসেবে মানবাধিকার, আইনের শাসন ও ধর্মীয় স্বাধীনতা রক্ষার গুরুত্ব পুনর্ব্যক্ত করেছেন।

বৈঠকে পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোমেনের সঙ্গে ছিলেন সংসদ সদস্য মাহবুবুল আলম হানিফ, পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন, সচিব (পশ্চিম) শাব্বির আহমদ চৌধুরী এবং যুক্তরাষ্ট্রে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত এম শহীদুল ইসলাম।
 

Nagad

সর্বশেষ

Islami Bank Bangladesh Ltd

পাঠকপ্রিয়